৮ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ২৩শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

মোদীর রাজ্যে সেতু বিপর্যয়ে মর্মাহত আমেরিকা, চিন, রাশিয়া

আপডেট : নভেম্বর ১, ২০২২ ৭:০৭ অপরাহ্ণ

40

ভয়েস বাংলা ডেস্ক

ঝুলন্ত সেতু ভেঙে শতাধিক মানুষের প্রাণহানি ঘটেছে গুজরাতে। আরও বেশ কয়েক জন নিখোঁজ বলে দাবি করা হয়েছে। মোরবীতে সেতু বিপর্যয়ের ঘটনায় দুঃখপ্রকাশ করেছে আন্তর্জাতিক মহলও। মৃতদের পরিবারকে সমবেদনা জানিয়েছেন আমেরিকা, রাশিয়ার প্রেসিডেন্টরা।

রবিবার সন্ধ্যায় মাচ্ছু নদীর উপর ব্রিটিশ আমলের তৈরি শতাব্দীপ্রাচীন ঝুলন্ত সেতু ভেঙে পড়ে। এই ঘটনায় ১৩০ জনেরও বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন আরও কয়েক জন। যে সময় সেতুটি ভেঙে পড়ে, সে সময় সেখানে শতাধিক মানুষের সমাগম হয়েছিল বলে দাবি করেছেন প্রত্যক্ষদর্শীরা। সংস্কারের জন্য বন্ধ ছিল সেতুটি। গত ২৬ অক্টোবর তা আবার জনসাধারণের জন্য খুলে দেওয়া হয়। এই ঘটনায় সেতু সংস্কারকারী সংস্থার কর্মী-সহ ৯ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

গুজরাতে সেতু বিরর্যয়ের ঘটনায় এক বিবৃতিকে আমেরিকার প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন লিখেছেন, ‘‘ভারতের পাশে রয়েছি আমরা। মৃতদের পরিবারকে সমবেদনা জানাই। আমেরিকা ও ভারতের মধ্যে নিবিড় বন্ধন রয়েছে। এই কঠিন সময়ে আমরা ভারতীয়দের সঙ্গে রয়েছি।’’আমেরিকার মতোই সেতু দুর্ঘটনায় ভারতের পাশে দাঁড়িয়েছে রাশিয়া। রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মু ও প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর উদ্দেশে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন লিখেছেন, ‘‘গুজরাতে সেতু বিপর্যয়ের ঘটনায় মৃতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি।’’ দুঃখপ্রকাশ করে বার্তা দিয়েছেন ই‌জ়রায়েলের প্রধানমন্ত্রী ইয়ার ল্যাপিড। এই ঘটনায় গভীর ভাবে মর্মাহত বলে মন্তব্য করেছেন শ্রীলঙ্কার প্রধানমন্ত্রী রনিল বিক্রমসিঙ্ঘে।

শোকপ্রকাশ করেছেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী শের বাহাদুর দেউবা, সৌদি আরবের বিদেশ মন্ত্রক ও চিনের বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্রও।এক বিবৃতিতে চিনা বিদেশ মন্ত্রকের মুখপাত্র ঝাও লিজিয়ান বলেছেন, ‘‘কী ঘটেছে, সে ব্যাপারে আমরা নজর রেখেছি। মৃতদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি।’’

সূত্র: আনন্দবাজার অনলাইন




স্মৃতি ও স্মরণ

ছবি