২৪শে জানুয়ারি, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ১০ই মাঘ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

সামরিক খেতাব ও রাজকীয় উপাধি হারালেন প্রিন্স অ্যান্ড্রু

আপডেট : জানুয়ারি ১৪, ২০২২ ১:৩৬ অপরাহ্ণ

9

ভয়েস বাংলা ডেস্ক

যৌন হয়রানির অভিযোগে রানি এলিজাবেথের দ্বিতীয় সন্তান ও ডিউক অব ইয়র্ক প্রিন্স অ্যান্ড্রু’র সামরিক খেতাব ফিরিয়ে নেওয়া হয়েছে। একইসঙ্গে আনুষ্ঠানিকভাবে ‘হিজ রয়্যাল হাইনে’ রাজকীয় উপাধি ব্যবহার করতে পারবেন না তিনি। এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি।

এ সংক্রান্তে বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) বাকিংহাম প্যালেসের বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ব্রিটেনের রানির সম্মতিতে ডিউক অব ইয়র্কের সামরিক খেতাব এবং রাজকীয় পৃষ্ঠপোষকতাগুলো রানির অধীনে ফিরিয়ে নেওয়া হয়েছে। এ অবস্থায় প্রিন্স অ্যান্ড্রু এখন থেকে কোনও দায়িত্বে থাকছেন না।

যুক্তরাষ্ট্রের একটি আদালত প্রিন্সের বিরুদ্ধে করা মামলা আমলে নেওয়ার পরই এমন পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। মার্কিন নারী জিউফ্রেকে ১৭ বছর বয়সে যৌন নিপীড়ন করেন প্রিন্স অ্যান্ড্রু। এমন অভিযোগ ওই নারী নিজেই করেছেন। পরবর্তীতে আদালতে মামলা দায়ের করেন তিনি।

প্রিন্স অ্যান্ড্রুর বিরুদ্ধে মামলায় আদালতে দাখিল করা নথিতে জিউফ্রে অভিযোগ করেছেন, তিনি প্রয়াত ধনকুবের অর্থলগ্নিকারী এপস্টেইনের মাধ্যমে যৌন পাচার হয়ে প্রিন্স অ্যান্ড্রুর যৌন নিপীড়নের শিকার হয়েছিলেন।

যুক্তরাস্ট্রের জেলা বিচারক লুইস কাপলান বলেন, জিউফ্রের বয়স এখন ৩৮। তিনি দাবি করতে পারে ব্রিটেনের প্রিন্স অ্যান্ড্রু শারিরীক নির্যাতন করেছিলেন। যদিও যৌন হয়রানির অভিযোগ বরাবরই অস্বীকার করে আসছেন প্রিন্স।

এর আগে প্রিন্স অ্যান্ডুর সামরিক মর্যাদা কেড়ে নিতে রানির কাছে চিঠি লিখেন ব্রিটেনের সামরিক বাহিনীর সাবেক ১৫০ কর্মকর্তা।
সূত্রঃ বাংলা ট্রিবিউন