৬ই মার্চ, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ২১শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

লালগ্রহে পা ছোঁয়ানোর সময়ে ‘সাত মিনিটের আতঙ্ক’র ভিডিও প্রকাশ নাসার

আপডেট : ফেব্রুয়ারি ২৩, ২০২১ ১১:১৫ পূর্বাহ্ণ

10

ভয়েস বাংলা ডেস্ক

লালগ্রহ মঙ্গলে পা ছোঁয়ানোর আগে সেই সাত মিনিটের আতঙ্কের সময়ের ভিডিও তুলে পাঠাল নাসার রোভার ‘পার্সিভারেন্স’। এই প্রথম অন্য কোনও গ্রহে অবতরণের সময়ের সবচেয়ে ভয়ঙ্কর পর্বের ভিডিও তুলে পাঠাল কোনও মহাকাশযান। সোমবার গভীর রাতে পাসাডেনায় নাসার তরফে সেই ভিডিও প্রকাশ করা হয়েছে এক সাংবাদিক সম্মেলনে। যা শুরু হয় রাত সাড়ে ১২টায়, চলে রাত দুটো পর্যন্ত।

মঙ্গলের বায়ুমণ্ডলে একেবারে উপরের স্তরে ঢুকে পড়ার ২৩০ সেকেন্ড পর থেকেই শুরু হয় সেই ভিডিও, তখন মহাকাশযানের গতি ছিল ঘণ্টায় সাড়ে ১২ হাজার মাইল অর্থাৎ ঘণ্টা প্রতি ২০ হাজার ১০০ কিলোমিটার।

ভিডিওর শুরুতেই দেখা যাচ্ছে একটি চমকে দেওয়ার মতো ঘটনা। ১৮ ইঞ্চি লম্বা ও ২৬ ইঞ্চি চওড়া নাইলনের একটি সিলিন্ডার হঠাৎ করে ফুলেফেঁপে উঠতে শুরু করল। তার পর মঙ্গলের বায়ুমণ্ডলে সেই ছোট্ট সিলিন্ডারটাই ফুলেফেঁপে হয়ে উঠল সাড়ে ৭০ ফুট চওড়া একটা দানবাকৃতি প্যারাসুট। এত বড় প্যারাসুট সভ্যতা এর আগে আর পাঠায়নি লাল গ্রহে। তার পর শুরু হল গায়ে কাঁটা দেওয়ার সেই মুহূর্ত। এই প্যারাসুটে গা ভাসিয়ে নামতে শুরু করল নাসার ল্যান্ডার আর তার পেটের ভিতরে থাকা রোভার ‘পার্সিভারেন্স’। মঙ্গলের মাটি থেকে তার উচ্চতা মাত্র সাত মাইল অর্থাৎ ১১ কিলোমিটার। তার পর তা ধীরে ধীরে নামতে থাকল।

https://twitter.com/Dr_ThomasZ/status/1363929595821621253\

ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে, নামার সময় যখন নাসার ল্যান্ডারের গতি ছিল সেকেন্ডে ৩ মিটার, তখন মঙ্গলের বুক থেকে ধুলো উঠতে দেখা গেল, তার শব্দও রেকর্ড করে পাঠিয়েছে রোভারের সঙ্গে থাকা মাইক্রোফোন। এর আগে আর কোনও মহাকাশযানের পক্ষে এই ধুলো ওড়ার ছবি ও তার শব্দ পাঠানো সম্ভব হয়নি।

সূত্র: আনন্দবাজার পত্রিকা




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *