১লা আগস্ট, ২০২০ ইং | ১৭ই শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বন্যার পানি কমতে শুরু করেছে, বরিশালে বললেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

আপডেট : জুলাই ৩১, ২০২০ ৬:২৯ অপরাহ্ণ

2

ভয়েস বাংলা ডেস্ক

দেশে বন্যা পরিস্থিতির উন্নতি হচ্ছে। অভ্যন্তরীণ নদীর পানি স্থিতিশীল থাকলেও ধীরে ধীরে বঙ্গোপসাগরে পানি নেমে যাচ্ছে। উজানের দেশ ভারত, নেপাল ও ভুটানে আগামী কয়েক দিনে ভারী বৃষ্টি না হলে বাংলাদেশের নদ-নদীর পানি কমবে বলে আশা প্রকাশ করেছেন পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী কর্নেল (অব.) জাহিদ ফারুক শামীম এমপি।
 
আজ শুক্রবার (৩১ জুলাই) দুপুরে বরিশাল সদর উপজেলার কীর্তনখোলা ও আড়িয়ালখাঁ নদীর ভাঙনকবলিত এলাকা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের এসব কথা বলেন প্রতিমন্ত্রী। 

জাহিদ ফারুক আরও বলেন, নদ-নদীর পানি নেমে গেলে দেশে স্বস্তি ফিরে আসবে। দেশের ৬৪ জেলায় ৪৩২টি খাল খননের কার্যক্রম চলছে। অবৈধ দখলদার উচ্ছেদসহ নানা কারণে খাল খনন কার্যক্রম বিলম্বিত হয়েছে। খাল খনন শেষ হলে সারাদেশে ৫শ’ নদী খননের কাজ শুরু হবে। এই কার্যক্রম শেষ হলে বন্যার সময় নদ-নদীতে পানির ধারনক্ষমতা আগের চেয়ে বাড়বে। তখন নদ-নদীতে পানি বাড়লেও প্লাবনের তীব্রতা কমে আসবে।

এর আগে সকালে স্পিডবোটে করে প্রতিমন্ত্রী কীর্তনখোলা নদীর ভাঙনকবলিত সদর উপজেলার চরবাড়িয়া, চরমোনাই ও লামছড়ি এবং আড়িয়াল খাঁ নদীর কালীগঞ্জ এলাকা পরিদর্শন করেন। এ সময় নদী ভাঙনে দিশেহারা মানুষ দ্রুত ভাঙন প্রতিরোধে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য প্রতিমন্ত্রীর কাছে আবেদন জানান। প্রতিমন্ত্রী পানি উন্নয়ন বোর্ডের টেকনিক্যাল কমিটির সার্ভে রিপোর্ট পাওয়ার পর প্রয়োজন অনুযায়ী জিও ব্যাগ ফেলে জরুরি ভিত্তিতে এবং প্রকল্পের মাধ্যমে স্থায়ী ভিত্তিতে ভাঙন প্রতিরোধে কার্যকর ব্যবস্থা নেওয়ার আশ্বাস দেন। 

পরিদর্শনকালে পানি উন্নয়ন বোর্ড দক্ষিণাঞ্চল জোনের প্রধান প্রকৌশলী মো. হারুন-অর রশিদ ও সদর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট মাহবুবুর রহমান মধুসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *