২রা আগস্ট, ২০২০ ইং | ১৮ই শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

নার্সদের প্রতি ভালোবাসা

আপডেট : মে ১২, ২০২০ ৫:৪৬ অপরাহ্ণ

356

আনিস আলমগীর, গণমাধ্যম বিশ্লেষক

সম্ভবত আমি মেডিকেল কলেজ প্রথম দেখি ৭৩ সালে। আব্বা চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন ছিলেন। আমার বড় ভাই ডাক্তার মোস্তাফিজুর রহমানও তখন চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজের ডাক্তার। মেডিকেল কলেজ দেখার মধ্যে আমার সবচেয়ে আনন্দের জিনিস ছিল লিফট আর বিস্ময়কর ছিল বিশেষ স্টাইলে সাদা ড্রেস পরা পরিপাটি নারীরা। হাইহিল পরে তাদের হেটে যাওয়া। পরে জেনেছি ওদেরকে নার্স বলে। প্রথম দেখা থেকে নার্সদের প্রতি আমার যে বিশেষ ধরনের ভালোবাসা জন্মেছিল, সেটা সব সময় কাজ করেছে।

ক’বছর আগে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ওয়ার্ডে আমার এক স্বজনকে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়েছিল। সেখানে কর্তব্যরত ইন্টার্নি ডাক্তার আমাকে কয়েকটি ইনজেকশন এবং ওষুধ দিয়েছিলেন। তার একটি ইঞ্জেকশন দেওয়ার জন্য আমি যখন নার্সকে অনুরোধ করি, সিনিয়র সেই নার্স বিস্ময় প্রকাশ করেন! কে দিয়েছে এই ওষুধ জানতে চান। আমি ডাক্তারের কথা বললাম। তিনি খুব রাগ করলেন এবং বললেন যে এরা কিছুই জানেনা। এটা দিলে রোগী মারা যাবে। তারপর ওই ডাক্তারকে হালকা পাতলা ঝাড়ি দিলেন। বুঝলাম অভিজ্ঞতার অনেক মূল্য আছে। নার্সদের প্রতি শ্রদ্ধা আমার আরও বেড়ে গেল সেদিন।

আজ ১২ মে, বিশ্ব নার্স দিবস। পৃথিবীর সকল নার্সদের জন্য আমার অন্তর থেকে অফুরন্ত ভালোবাসা। এই করোনাকালে আরও বেশি ভালোবাসা। আমি চাই বাংলাদেশে আরো বিশ্বমানের নার্স তৈরি হোক। তারা শুধু দেশে নয়, সারা বিশ্বে ছড়িয়ে পড়ুক। আমাদের জন্য সুনাম এবং রেমিট্যান্স দুটিই নিয়ে আসুক। নার্স হোক আমাদের একটা প্রধান জনশক্তি।

ফেসবুক স্ট্যাটাস থেকে