২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

‘কলম্বোতে পা রাখার পর ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনেই থাকতে হবে বাংলাদেশ দলকে’

আপডেট : সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০ ১২:১৫ পূর্বাহ্ণ

21

ভয়েস বাংলা ডেস্ক

দেশের স্বাস্থ্য বিভাগের অনুমোদন ছাড়া কোয়ারেন্টাইনের সময় কোনোমতেই কমানো সম্ভব নয়। বাংলাদেশ দলের শ্রীলংকা সফর ও কোয়ারেন্টিন নিয়ে চলমান বিতর্কের মধ্যে এ কথা জোর দিয়েই বললেন শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটের চেয়ারম্যান শাম্মি সিলভা। শ্রীলঙ্কার আইল্যান্ড পত্রিকাকে দেওয়া সাক্ষাতকারে তিনি এ কথা বলেন।
শ্রীলঙ্কা ক্রিকেট বোর্ডের শর্ত হলো, বাংলাদেশ দলকে ১৪ দিনের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে। কিন্তু বিসিবি বলছে, সর্বোচ্চ ৭ দিনের বেশি কোয়ারেন্টাইনে থাকা সম্ভব নয় টাইগার ক্রিকেটারদের। লঙ্কান বোর্ডকে কড়া বার্তা পাঠিয়ে বিসিবি সভাপতি বলেন, ৭ দিনের কোয়ারেন্টাইনের ব্যাপারেই কথা চলছিল, ১৪ দিনের নয়।

সোমবার বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন সাফ জানিয়ে দিয়েছেন, ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনের শর্ত মেনে শ্রীলঙ্কা সফরে যাওয়া কোনোমতেই সম্ভব নয়।
শ্রীলংকান ক্রিকেটের প্রধান বলেন, ‘তারা যদি এটা বলে থাকে, তবে সেটা ভুল। আমি আসলেই বুঝতে পারছি না কেন তারা এক সপ্তাহের কথা বলছে। সাতদিনের কোয়ারেন্টাইনের বিষয়ে বিসিবির সাথে আমাদের কোনো কথা হয়নি।’
তিনি বলেন, ‘স্বাস্থ্য বিভাগের কথার বাইরে যাওয়া আমাদের পক্ষে সম্ভব নয়। এটা নিশ্চিত বাংলাদেশ দলকে বাধ্যতামূলক ১৪ দিনের কোয়ারেন্টাইনেই থাকতে হবে।’
লঙ্কান বোর্ড চেয়ারম্যান যোগ করেন, ‘যদি তারা (বাংলাদেশ) শ্রীলঙ্কায় আসার আগে কোয়ারেন্টাইন করেও আসে, তারপরও কলম্বোতে পা রাখার পর হোটেলে ১৪ দিনের বাধ্যতামূলক কোয়ারেন্টাইন পালন করতে হবে। আর তার সার্বিক খরচ শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটই বহন করবে।’




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *